৩০শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ || ১৫ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ


শিরোনাম :
  নন্দীগ্রামে জাতীয় পার্টির দোয়া ও খাবার বিতরণ       নন্দীগ্রামে ওএমএস’র চাল ও আটা বিক্রয় কেন্দ্র পরিদর্শন       নন্দীগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাসামগ্রী প্রদান করলেন এমপি মোশারফ হোসেন       কুন্দারহাট হাইওয়ে থানার নয়া ওসি আনোয়ারুল       দুই কিশোরীকে পাচার ঠেকালো লকডাউন, গ্রেফতার ১       নন্দীগ্রামে জাতীয় পার্টির তিনদিনের শোক কর্মসূচী       নন্দীগ্রামে বজ্রপাতে পিতাপুত্রের মৃত্যু       ইন্টারভিউ ছাড়াই নেয়া হচ্ছে ৮ হাজার নার্স-চিকিৎসক       দেশে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ২৪৭ মৃত্যু, শনাক্তেও নতুন রেকর্ড       নন্দীগ্রামের সিংড়াখালাশ মসজিদ নির্মাণ কাজের উদ্বোধন    


নন্দীগ্রামে দুই ইউনিয়নের ২৯ গ্রামে যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি

মামুন আহমেদ(স্টাফ রিপোর্টা)এসইটিভি নিউজঃ

বগুড়ার নন্দীগ্রামে যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে নেওয়া হয়েছে ব্যাপক পরিকল্পনা। এডিপি রাজস্ব, টিআর ও কাবিটা বরাদ্দে উপজেলার ৫টি ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামের কাঁচা রাস্তাগুলো ইট সোলিং করা হয়েছে। বিভিন্ন গ্রামে রাস্তার উন্নয়নকাজ পক্রিয়াধীন রয়েছে। এ কাজের অনিয়ম ঠেকাতে স্থানীয় জনতার নজরদারি লক্ষ্য করা গেছে। সম্প্রতি থালতামাঝগ্রাম ইউনিয়ন ও বুড়ইল ইউনিয়নের ২৯ টি গ্রামের যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতিতে কয়েক হাজার মানুষের দুর্ভোগের অবসান হয়েছে। বুড়ইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুর মোহাম্মদ জানান, এডিপি রাজস্ব বরাদ্দে সরিষাবাদ, মুরাদপুর, পোঁতা, সিংজানী পাঁচপুকুর, কামুল্যা, সিংজানী, সিধইল, পেং দাসপাড়া, পেং খন্দকারপাড়া ও দাসগ্রাম হিন্দুপাড়া গ্রামে রাস্তার ইট সোলিংকাজ সম্পন্ন হয়েছে। টিআর বরাদ্দে সিংজানী গ্রামে কাজ হয়েছে। আকবর অটো রাইস মিল, দাসগ্রাম সোনারপাড়া, কহুলী, বীরপলী ও চাপিলাপাড়া গ্রামে উন্নয়নকাজ পক্রিয়াধীন রয়েছে। কাবিটা বরাদ্দে তুলাশন ও সিংজানী গ্রামে রাস্তার ইট সোলিং সম্পন্ন হয়েছে। এদিকে থালতামাঝগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. আব্দুল মতিন জানান, কাবিটা বরাদ্দে আন্দাশুরা, বাঁশো, মধুকুড়ি, টিআর বরাদ্দে পারশুন, বাঁশো দক্ষিণপাড়া, দারিয়াপুর পশ্চিমপাড়া, চাঁনপুর, গোপালপুর হিন্দুপাড়া ও এডিপি রাজস্ব বরাদ্দে বনগ্রাম, নিমাইদিঘী দক্ষিণপাড়া, কয়ারপাড়া, ঘনপাড়া, মাঝগ্রামে রাস্তার ইট সোলিংকাজ সম্পন্ন হয়েছে এবং বিভিন্ন গ্রামে উন্নয়নকাজ চলমান রয়েছে। মধুকুড়ি গ্রামের বাসিন্দা প্রভাত কুমার ও পারশুন গ্রামের সোহাগ আলী বলেন, গ্রামের কাঁচা রাস্তায় ইট সোলিং করায় দুর্ভোগ কমেছে। বর্ষা মৌসুমে বৃষ্টি হলে কাঁচা রাস্তায় কাদামাটি দিয়ে চলাচল করতে হতো। যাতায়াত করার সময় সীমাহীন দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে। রাস্তার উন্নয়নে কাদামাটির দুর্ভোগ থেকে রক্ষা পেয়েছে গ্রামের মানুষ। এ প্রসঙ্গে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. আবু তাহের জানান, যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন, পুকুর প্যালাসাইটিং ও মসজিদ মাদ্রাসার উন্নয়নে ব্যাপক পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে সরকার। সেলক্ষ্যে উন্নয়নকাজ চলমান রয়েছে।

 

এসইটিভি নিউজ/মামুন


Top